FriendsDiary.NeT | Friends| Inbox | Chat
Home»Archive»

কিভাবে বুঝবেন আপনি করোনা ভাইরাস (Covid-19) দিয়ে আক্রান্ত?

কিভাবে বুঝবেন আপনি করোনা ভাইরাস (Covid-19) দিয়ে আক্রান্ত?

*

#Covid19 #Alert #Alarming

কিভাবে বুঝবেন আপনি করোনা ভাইরাস (Covid-19) দিয়ে আক্রান্ত?

দিন অনুযায়ী লক্ষ্মণ সমূহঃ

Day 1 - Day 3:

- সাধারণ সর্দিকাশি, হাল্কা গলা ব্যথা, তেমন কোনো জ্বর নাই।
আপেক্ষিক ভাবে সুস্থ এবং খাওয়া দাওয়া করতে সমস্যা হবে না।

Day 4:

-গলা ব্যথা প্রথম ৩ দিনের তুলনায় কিছুটা বেশী। মাথা ঘোরা ও কিছুটা ভারসাম্যহীন অনুভব করা।
-কথা বলতে কষ্ট হওয়া,শরীরের তাপমাত্রা 36.7°c এর আশেপাশে।
-খাওয়া দাওয়া করতে সমস্যা হওয়া।
-হাল্কা মাথা ব্যথা,অনেক সময় ডায়রিয়ার মতো হওয়া।

Day-5:

গলা ব্যথা পূর্বের চেয়ে বেশী ।কথা বললে গলায় বেশি ব্যথা করা।দেহের তাপমাত্রা ৩৬.৫°-৩৬.৭° এর কাছাকাছি।শারীরিক দূর্বলাতা ও জয়েন্টে জয়েন্টে ব্যথা।

Day 6:-

-জ্বরের তীব্রতা আস্তে আস্তে বেড়ে 37°c এর আশেপাশে থাকা। শুকনা কাশি শুরু হওয়া।কথা বলার সময় বা ঢোক গিলতে গেলে ব্যথা করা।অস্বাভাবিক দূর্বলতা,বমি বমি ভাব,
মাঝে মাঝে শ্বাসকষ্ট হওয়া। হাতের আঙুল গুলোতে ব্যথা শুরু হওয়া।
বমি,ডায়রিয়া।

Day 7:-

-উচ্চমাত্রায় জ্বর (37.4°c - 37.8°c),
-কফ সহ কাশি
-মাথা ও শরীর ব্যথা,বমি ও ডায়রিয়া বৃদ্দ্বি পাওয়া।

Day 8:-

-জ্বরের মাত্রা বৃদ্ধি পেয়ে 38° বা 38°C এর উপরে চলে যায়।
-শ্বাসক্ষট এবং প্রতিবার শ্বাসপ্রশ্বাস নেয়ার সময় বুক ভার ভার লাগে।
-বিরতিহীন কাশি।
মাথা ব্যথা,জয়েন্ট ব্যথা এবং কোমরের মাংস ব্যথা।

Day 9:-

আগের সকল সিম্পটম থাকবে তবে সেগুলো মারাত্মক আকার ধারন করা যেমন জ্বরের অবস্থা আরো অবনতি , শ্বাসপ্রশ্বাস বন্ধ হয়ে যাওয়ার অবস্থা

বিঃদ্রঃ
এগুলোর যেকোনো একটা সাইন সিমটম্প দেখা দিলে, দ্রুত IEDCR এর ফোন নাম্বারে যোগাযোগ করতে হবে।

ডায়াবেটিস রোগীদের ইমইউন সাপ্রেজড থাকায়,তাদের ঝুকি বেশি।

#করোনা_ভাইরাস_প্রতিরোধ :

1. ধূমপান বন্ধ করুন।
২. অ্যালকোহল পান করা বন্ধ করুন।
এটি কেবল হাতে ব্যবহার করুন।
৩. প্রতিদিন গোসল করুন (যদি সম্ভব হয়
অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াল সাবান বা বডি
ওয়াশ- ডেটল, লাইফবয় দিয়ে)
৪. ঠান্ডা খাবার থেকে দূরে থাকুন -
আইসক্রিম, ঠান্ডা রস, বরফ)
৫. প্রচুর পানি পান করুন - রস, গরম স্যুপ
ভিটমিন সি সমৃদ্ধ আইটেমগুলি নিন
(কমলার রস, লেবু, অন্যান্য টক ফল)
7. সূর্যের এক্সপোজার -ভিটামিন ডি
8. ঘন ঘন হাত ধোয়া, হাতের স্যানিটেশন
বজায় রাখুন.
9. ডিম, মুরগি এসব ভালোভাবে সিদ্ধ করে
খাওয়া উচিত
10. আপনার হাঁপানি, কপড, ডায়াবেটিস,
এইচটিএন নিয়ন্ত্রণে রাখুন।
১১. স্বাস্থ্যকর খাবার গ্রহণ করুন।

#ফ্লুর_সময়: (হামলার পরে)

1. প্যারাসিটামল ( Xpa-Xr/ace plus/napa
extend/ napa extra/Napa rapid)
২. অ্যান্টিহিস্টামিন ( fexo, rupa, alatrol,
deslor,ketotifen)
৩. Steam inhalation-প্লেইন টেপ জল বা
লবণাক্ত জল,আপনি একটি
বাষ্পীকরণকারী বা একটি কেটলি দ্বারা
মেন্থল, ক্যামোমিল, পূর্ণভা এস্পায়ারার,
প্রয়োজনীয় তেল যোগ করতে পারেন)।
৪. নুনের জলে গার্গল করুন।
5. নরসোল অনুনাসিক ড্রপ
৪. পৃথক টয়লেট ব্যবহার করুন বা সম্ভব না
হলে নিয়মিত আপনার টয়লেট পরিষ্কার
করুন
5. মুখোশ ব্যবহার করুন। কাশি হাঁচি দেওয়ার
সময় মুখ ঢেকে রাখুন, টিস্যু পেপার ব্যবহার
করুন এবং ফেলে দিন ঢাকনা ওয়ালা বর্জ্য
পাত্রে।
৪. আপনার কাছের এবং প্রিয়জনদের থেকে
কমপক্ষে (কমপক্ষে 3 ফুট) দূরে থাকুন
এবং অন্যান্য ফ্লু রোগীর হাত থেকেও দূরে
থাকুন।
5. চুম্বন বন্ধ করুন, আলিঙ্গন।

#বি.দ্র: দূরে থেকে ভালোবাসা প্রমান করুন। এটাই আসল ভালোবাসা যে আপনার ভালেবাসার মানুষ থাকুক সুরক্ষিত।

করোনার ভাইরাস একটি সুপার স্প্রেডার.
এটি যে কাউকে আক্রমণ করতে পারে তবে এটি সবাইকে হত্যা করতে পারে না। আপনার অনাক্রম্যতা আপনাকে মৃত্যুর হাত থেকে বাঁচাতে পারে l

তথ্যসূত্রঃ Singapore Ministry of Health.

*




0 Comments 340 Views
Comment

© FriendsDiary.NeT 2009- 2021